গুগলকে সংবাদের জন্য অর্থপ্রদানে বাধ্য করতে পারে ইইউ

আমাদের নতুন সময় : 23/06/2018

আসিফুজ্জামান পৃথিল: নতুন কপিরাইট আইন পাশের খুব কাছাকাছি পৌঁছে গেছে ইউরোপিয় ইউনিয়ন। নতুন আইনের সমালোচনায় মুখর হয়েছে গুগলের মতো তথ্যপ্রযুক্তিখাতের কোম্পানিগুলো। এই আইনে গুগলের মতো কোম্পানিগুলোকে সংবাদের অংশ দেখাতে অর্থ পরিশোধ করতে হবে। গত বুধবার ইউরোপিয়ান পার্লামেন্টের একটি কমিটি এই সংক্রান্ত আইনের খসড়া প্রস্তুত করেছে। শুধু গুগল নয়, ফেসবুকের মতো সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোকেও কপিরাইটের অপব্যবহার ঠেকাতে ফিল্টার ব্যবহার করতে হবে। তবে অনেকেই এই আইনের সমালোচনা করছেন। এর মধ্যে রয়েছেন ওয়ার্ল্ড ওয়াইড ওয়েবের প্রস্তুতকারক টিম বর্নার্স-লি এবং উইকিপিডিয়ার প্রতিষ্ঠাতা জিমি ওয়ালস। তারা মনে করেন এর ফলে ইন্টারনেট ব্যবহারকারিদের মত প্রকাশের স্বাধীনতা ব্যহত হবে। অনেকে মনে করছেন এই আইনের ফলে ইন্টারনেট মেমের যুগাবসান ঘটবে। এর ফলে মাধারণ মানুষ নিজেদের মেধার প্রয়োগ করতে ব্যর্থ হবেন। এর প্রতিবাদে বার্নার্স-লি, ওয়ালস এবং অন্যান্য সমালোচকরা ইউরোপিয় পার্লামেন্টের প্রেসিডেন্ট অ্যান্টোনিয় তাজানিকে একটি চিঠি লিখেছেন। এই চিঠিতে তারা বলেন, ‘এই প্রস্তাবিক আইন ইন্টারনেটের মুক্ত প্লাটফর্মকে বদ্ধ যুগে নিয়ে যাবে। এর ফলে ব্যাক্তিস্বাধীনতায় সহজেই হস্তক্ষেপ করা যাবে।’ বড় তথ্যপ্রযুক্তি কোম্পানিগুলোও এই আইনের বিরুদ্ধে কথা বলছে। গুগল জানিয়েছে কার্যকর হলে এই আইন সংবাদপত্রগুলোকে গুগল সার্চে আসতে বাঁধা প্রদান কনরবে। -সিএনএন । সম্পাদনা : এস এম সবুজ




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]