মামার চিকিৎসায় খাবার বিক্রি করে ঢাবি ছাত্রীর অর্থ সংগ্রহ, ডাকসুর সহযোগিতার আশ্বাস

আমাদের নতুন সময় : 23/04/2019

আসিফ হাসান : ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসিতে আইইআর এর (ইনস্টিটিউট অব এডুকেশন অ্যান্ড রিসার্চ) সিনিয়র ছাত্রী ফারজানার মামার চিকিৎসার ব্যয় নির্বাহে খাবার বিক্রি করে অর্থ সংগ্রহ চলছে। গত ৪ দিন ধরে লম্বা লাইনে দাঁড়িয়ে শত শত শিক্ষার্থী খাবার কিনে খেয়েছেন। ডাকসু ভিপি নূরুল হক নুরুসহ ঢাবির সাধারণ শিক্ষার্থীরা এগিয়ে এসেছেন ফারজানার মামার চিকিৎসার সহযোগিতায়।
ঢাবি ছাত্র মাহফুজ হক সরকার বলেন, নিজ অনুষদের ছোট বোনের মানবিক আবেদনে সকলেই এগিয়ে এসেছেন, যা সত্যিই প্রশংসনীয়। খাবারের মান, স্বাদ ও মূল্য নিয়েও শিক্ষার্থীরা তাদের সন্তুষ্টির কথা জানান। ফারজানার বন্ধুরা জানায়, ফারজানার মামা পেশায় একজন রিকশাচালক। নাম আবু মুসা। তার বাড়ি বগুড়া জেলায়। সম্প্রতি তার মামার হৃদযন্ত্রে সমস্যা দেখা যায়। চিকিৎসকরা জানায় অস্ত্রোপচারের জন্য ৪ লক্ষ টাকা দরকার। বান্ধবীদের পরামর্শে টাকা জোগাড় করার জন্য সে খাবার বিক্রি করে অর্থ সংগ্রহের সিদ্ধান্ত নেয়।
জেরিন ফারজানা জানান, মাত্র ৪ দিন খাবার বিক্রি করে ও বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের সার্বিক সহযোগিতায় অর্থ সংগ্রহ সম্ভব হয়েছে। সোমবার সন্ধ্যার মধ্যে ৪০ হাজার টাকা সংগ্রহ হয়েছে।
ডাকসু ভিপি নুরুল হক নুরু বলেন, আমিসহ ১০ জন শিক্ষার্থীকে নিয়ে খেয়ে এসেছি। ডাকসু থেকে কোন আর্থিক সহযোগিতা করার পরিকল্পনা আছে কিনা এমন প্রশ্নে নুরু জানান, ফারজানার সাথে আমার কথা হয়েছে। আর্থিক সাহায্য নিতে সে অস্বীকৃতি জানিয়েছে। তবে ডাকসু ছাত্র সংসদের পক্ষ থেকে প্রতিটি হল সংসদের নেতাদের অর্থ সহায়তার জন্য নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। এছাড়াও কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগার থেকে ১৭ হাজার টাকা ফারজানার হাতে তুলে দেয়া হয়েছে।
ঢাকা মেডিকেলের চিকিৎসকরা জানায়, আবু মুসার হার্টে দুটি রিং বসানো হয়েছে। ৬ মাস পর আরও একটি রিং বসানোর প্রয়োজন হতে পারে। সম্পাদনা : রেজাউল আহসান




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]