• প্রচ্ছদ » » আমি মুসলমান, কিন্তু ওই দাঙ্গাবাজদের কাতারে দাঁড়ানো মুসলমান নই


আমি মুসলমান, কিন্তু ওই দাঙ্গাবাজদের কাতারে দাঁড়ানো মুসলমান নই

আমাদের নতুন সময় : 27/10/2021

হাসান মোরশেদ

যারা অন্য ধর্মের মানুষকে তুচ্ছ করে, হামলা নির্যাতন করে- ধর্মীয় পরিচয়ে তারা এবং আমি সমগোত্রীয় হলেও আমি তাদের বা তারা আমার মানুষ নয়। আমরা এক কাতারের নই। অতীত অভিজ্ঞতায় জানি তারা আমাকেও আক্রমণ করবে, আমার জন্যও তারা একই রকম ভয়ংকর। কয় প্রজন্ম আগের মুসলমান আমরা, আমার জানা নেই। কিন্তু স্মৃতিতে অন্তত তিন প্রজন্ম আছেন। পিতৃ ও মাতৃকুলের তিন প্রজন্মের কারও মধ্যে সাম্প্রদায়িক ঘৃণা দেখিনি। আমার বন্ধু যেমন রায় কিংবা দেব, মায়ের বান্ধবীও দেখেছি যমুনা মাসি, নানাকেও দেখেছি তাঁর হিন্দু বন্ধুর সঙ্গে গল্প করতে, নানীর মাকেও দেখেছি অসাম্প্রদায়িক। আমার দুই চাচা এই রাষ্ট্র অর্জনের যুদ্ধে প্রাণ দিয়েছেন যে রাষ্ট্রের প্রতিশ্রুতি ছিলো সব মানুষের সমান অধিকার- কেউ সংখ্যা বেশি বলেই এই রাষ্ট্র তার বাপের তালুক হয়ে যাওয়ার কথা নয়।
হ্যাঁ। আমি ধর্মে মুসলমান। আমি কতোটা মুসলমান সে জবাব দেবো শেষ বিচারের দিন একমাত্র আল্লাহর কাছে, এর বাইরে আর কারও কাছেই নয়। আল্লাহ তাঁর এই বিচারিক ক্ষমতা আর কাউকে অর্পণ করেননি। আমি মুসলমান কিন্তু ওই দাঙ্গাবাজদের কাতারে দাঁড়ানো মুসলমান নই। আমার পূর্বপুরুষও তাদের কাতারে দাঁড়াননি, তাদের বিরুদ্ধে লড়েছেন। আমি সেই পরম্পরা বহন করি। আমি লজ্জিত হয়ে কুঁকড়ে থাকবো না। আমার শক্তি সামর্থ্য দিয়ে নির্যাতিতের পাশে আছি, নিপীড়কের বিরুদ্ধে। নিপীড়ক আমার ধর্মের হোক, আমার রাজনৈতিক বিশ্বাসের হোক, আমার জাতির হোক- সে আর আমি এক নই। ছিলামও না কখনো। লেখক ও গবেষক




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]